বৃহস্পতিবার, ০৭ জুলাই ২০২২, ০৭:১৮ অপরাহ্ন

চকরিয়ায় সড়কের গতিরোধ করে পিকআপ ছিনতাই

নিউজ ডেস্কঃ কক্সবাজারের চকরিয়া উপজলার হারবাং ইউনিয়নের উত্তরে আজিজ নগর পেট্টোল পাম্পের সামনে ব্যারিকেট দিয়ে সুপারী বোঝাই একটি পিকআপ ছিনতাই করেছে দুর্বৃত্তরা।

গত শনিবার (৩০ অক্টোবর) বিকাল আনুমানিক তিনটার দিকে কক্সবাজার-চট্টগ্রাম মহাসড়কের এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় পিকআপ গাড়ির মালিকের ছেলে নাজমুল সাঈদ বাদী হয়ে রবিবার (৩১ অক্টোবর) চকরিয়া থানায় একটি এজাহার জমা দিয়েছেন।

এজাহারে ১০ জনের নাম উল্লেখ্য ছাড়াও আরও ১০-১২ জনকে অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে। এজাহারনামীয় আসামিরা হলো- মিজান (৩২), চকরিয়া পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ডের স্টেশনপাড়ার রাসল (৩৩), তহিদুল ইসলাম (২৬), পুর্ববড় ভেওলা ঈদমনি গ্রামের হাবিবুর রহমান (৩৮), হারবাং ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের গাইনাকাটা গ্রামের ফরিদুল আলম (৪৫), শাহাজাহান (৩০), জহিরুল ইসলাম (২৮), মো. হারুন (২৪), আবদুর রহমান (২৭) ও আজিজ (২৫)।

গাড়ির মালিক নাজমুল সাঈদ এজাহারে বলেন, ঘটনার দিন শনিবার বিকাল আনুমানিক তিনটার দিকে চট্টগ্রাম থেকে সুপারী ভর্তি করে চকরিয়া ফিরছিলেন তার গাড়িটি। ওইসময় গাড়িটি আজিজ নগর পেট্টোল পাম্পের সামনে পৌঁছলে ঘটনাস্থলে অন্য একটি গাড়ি করে এসে ব্যারিকেট দিয়ে আমাদের গাড়িটি থামায়। এরপর চালক মোহাম্মদ সাকিবকে নামিয়ে মারধরের পর সুপারীসহ পিকআপ গাড়িটি নিয়ে পালিয়ে যায়।

গাড়ির মালিক জানান, ছিনতাইকালে পিকআপ গাড়িতে প্রায় দুই লাখ ৮০ হাজার টাকার অন্তত ৪০ বস্তা সুপারী ছিল। ঘটনার সময় চালক সাকিবকে মারধর করে গাড়ি থেকে নামিয়ে দিয়ে তার ব্যবহৃত একটি মোবাইল এবং গাড়িতে থাকা ভাড়ার নগদ ২৮ হাজার টাকা লুটে নেয়। ওইসময় আমার গাড়ির চালক ও হেলফার চিৎকার করলে ঘটনাস্থলে আশপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে অভিযুক্তরা পালিয়ে যায়।

চকরিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ ওসমান গনী বলেন, সুপারী বোঝাই পিকআপ গাড়ি ছিনতাইয়ের বিষয়ে একটি এজাহার জমা দিয়েছেন গাড়িটির মালিক। বিষয়টি তদন্তের জন্য হারবাং পুলিশ ফাঁড়ির আইসিকে নির্দেশ দিয়েছি।


Leave a Reply

Your email address will not be published.

Design & Developed BY N Host BD