বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪, ০১:০৭ অপরাহ্ন

পুরনো ফ্র্যাঞ্চাইজি মুম্বাইয়ে ফিরছেন হার্দিক

নিউজ ডেস্কঃ একেবারে শেষ সময়ে এসে দল পরিবর্তন করছেন হার্দিক পান্ডিয়া, গণমাধ্যমে এই আলোচনা এখন তুঙ্গে। ভারতীয় প্রিমিয়ার লিগে (আইপিএল) গুজরাট টাইটানস ছেড়ে নিজের পুরনো ফ্র্যাঞ্চাইজি মুম্বাই ইন্ডিয়ানসে ফিরছেন এই অলরাউন্ডার!

আগামীকাল ২৬ নভেম্বর আইপিএলের আগামী মৌসুমের জন্য ক্রিকেটার ছেড়ে দেওয়া কিংবা রেখে দেওয়ার শেষ সময়; তার মাত্র একদিন আগে দেশের অন্যতম সেরা অলরাউন্ডার করছেন নিজের ফ্র্যাঞ্চাইজি বদল, এমনটিই জানিয়েছে ক্রিকেট বিষয়ক জনপ্রিয় ওয়েবসাইট ‘ক্রিকনইনফো’।

গুঞ্জন উঠেছে, একেবারেই ব্যতিক্রমী কিছু না ঘটলে মুম্বাইয়েই ফিরছেন হার্দিক। বিনিময়ে এই ক্রিকেটারের স্যালারি হিসেবে গুজরাটকে ১৫ কোটি রুপি দেবে মুম্বাই। এছাড়া ট্রান্সফার ফিও গুনতে হবে মুম্বাইকে। তবে ট্রান্সফার ফির ৫০ ভাগ পর্যন্ত পেতে পারেন হার্দিক।

যদি হার্দিক দল পরিবর্তন করেই ফেলে, তাহলে এটি হবে আইপিএলের ইতিহাসে সর্বোচ্চ অর্থের কেনাবেচা। তবে এটি নিয়ে মিডিয়ার সামনে কোনো ধরনের মন্তব্য করেনি কোনো ফ্র্যাঞ্চাইজি।

গত আসরের নিলামের পর লেনদেনে খরচ করার জন্য মুম্বাই ইন্ডিয়ানসের হাতে বাকি ছিল মাত্র ৫ লাখ রুপি। আগামী আসরের জন্য ফ্র্যাঞ্চাইজিটি আরও ৫ কোটি রুপি ব্যয় করতে পারবে। এর মানে হলো, যদি মুম্বাই হার্দিককে কিনেই নেয়, তাহলে ফ্র্যাঞ্চাইজিটিকে বেশ কিছু ক্রিকেটারকে ছেড়ে দিতে হবে।

২০২২ সালে আইপিএলে অভিষেক ঘটে গুজরাট টাইটানসের। ওই আসরে হার্দিকের নেতৃত্বে রাজস্থান রয়েলসকে হারিয়ে শিরোপা জিতে নেয় ফ্র্যাঞ্চাইজিটি। পরের আসরেও ফাইনালে উঠেছিল গুজরাট। তবে চেন্নাই সুপার কিংসের কাছে হেরে রানার্স হয় হার্দিকের নেতৃত্বাধীন দল।

২০১৫ সালে মুম্বাইয়ের হয়ে আইপিএল ক্যারিয়ার শুরু করেন হার্দিক। অভিষেক আসরে তাকে ১০ লাখ রুপি দিয়ে কিনেছিল পাচঁবারের চ্যাম্পিয়ন ফ্র্যাঞ্চাইজিটি। হার্দিকের দলে থাকা অবস্থায় ২০১৫, ২০১৭ ও ২০২০ সালে আইপিএলের শিরোপা জিতে মুম্বাই ইন্ডিয়ানস।

অভিষেকের পর থেকে ২০২১ সালের নিলাম পর্যন্ত হার্দিককে ধরে রেখেছিল মুম্বাই। এরপর ২০২২ সালের বড় অঙ্কের নিলামে মুম্বাই ছেড়ে গুজরাটে যোগ দিয়েছেন এই তারকা অলরাউন্ডার। এরপর ২০২৪ সালে এসে ঘরের ছেলে ফিরছেন নিজের ঘরে।


Leave a Reply

Your email address will not be published.

Design & Developed BY N Host BD