মঙ্গলবার, ১৯ অক্টোবর ২০২১, ০৫:২৪ পূর্বাহ্ন

ফিলিপিন্সে ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে বন্যা-ভূমিধসে নিহত ৯

নিউজ ডেস্কঃ দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দ্বীপরাষ্ট্র ফিলিপিন্সে ক্রান্তীয় ঘূর্ণিঝড় কমপাসুর প্রভাবে ভারি বৃষ্টিপাতের ফলে সৃষ্ট হড়কা বান ও ভূমিধসের ঘটনায় অন্তত নয়জনের প্রাণহানি ঘটেছে।

মঙ্গলবারের (১২ অক্টোবর) এসব ঘটনায় আরও ১১ জন নিখোঁজ রয়েছেন বলে দেশটির দুর্যোগ সংস্থার বরাতে জানিয়েছে ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

সোমবার (১১ অক্টোবর) স্থানীয় সময় সন্ধ্যায় ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ১০০ কিলোমিটার (৬২ মাইল) একটানা বাতাসের বেগ নিয়ে সাগর থেকে স্থলে উঠে আসে কমপাসু। এরপর স্থলে উঠে আসার আগে আরেকটি ঘূর্ণিঝড়ের অবশিষ্টাংশ কমপাসুর সঙ্গে মিশে যায়। আগেই ঘূর্ণিঝড়ের মুখে থাকা প্রায় ১৬০০ লোককে নিরাপদ স্থানে সরিয়ে নেওয়া হয়।

দেশটির দুর্যোগ সংস্থা জানিয়েছে, তাদের আঞ্চলিক ইউনিটগুলোর পাঠানো প্রতিবেদনে উত্তরাঞ্চলীয় বেনগুয়েত প্রদেশে ভূমিধসে চারজনের এবং দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলীয় দ্বীপ পালওয়ান প্রদেশে হড়কা বানে পাঁচজনের মৃত্যু হয়েছে। তারা এসব প্রতিবেদন যাচাই করে দেখছে বলে দাবি সংস্থাটির।

নিখোঁজ ১১ জনের সন্ধানে তল্লাশি ও উদ্ধার অভিযান চলছে। এদের মধ্যে অধিকাংশই ভূমিধসগুলোর পর নিখোঁজ হয়েছেন।

বিশ্লেষকদের মতে, সাত হাজার ছয়শরও বেশি দ্বীপমালা নিয়ে গঠিত ফিলিপিন্সে বছরে প্রায় ২০টির মতো শক্তিশালী ঝড় বা টাইফুন আঘাত হানে। মূলত এর প্রভাবে ভারি বৃষ্টিপাতের সময় প্রাণঘাতী বহু ভূমিধসের ঘটনাও ঘটে।

দেশটির প্রেসিডেন্ট রদরিগো দুতার্তে সরকারের দুর্যোগ মোকাবিলার সামগ্রিক উদ্যোগ পর্যবেক্ষণ করছেন বলে মঙ্গলবার নিশ্চিত করেছেন তারই মুখপাত্র হ্যারি রোকে।

রোকে জানান, উদ্ধারকারী দলের সদস্যরা ঘটনাস্থলে আছেন। একই সঙ্গে বিদ্যুৎ, পানি সরবরাহ ব্যবস্থা ফের সচল করা এবং সড়ক পরিষ্কার করার কাজ চলমান আছে।

উল্লেখ্য, মঙ্গলবার কমপাসু ফিলিপিন্স ছেড়ে ফের সাগরে চলে যাবে বলে জানিয়েছে দেশটির আবহাওয়া সংস্থা।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Design & Developed BY N Host BD